সর্বশেষ সংবাদ

ঘূর্ণিঝড় বুলবুল এর আঘাতে লন্ডভন্ড তালা উপজেলা কয়েক কোটি টাকার ক্ষতির আশংখা

মোঃ আকবর হোসেন,তালাঃ ঘূর্ণিঝড় বুলবুল এর আঘাতে লন্ডভন্ড হয়েছে তালা উপজেলা। গাছপালা, ঘরবাড়ী, স্কুল,কলেজ,মাদ্রাসা মন্দিরসহ কয়েক কোটি টাকার ক্ষয় ক্ষতি হয়েছে বলে দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা(পিআইও) অফিস সুত্রে জানা যায়।
সরজমিনে গিয়ে, তালা, জালালপুর, খলিলনগর, খলিশখালীসহ বিভিন্ন ইউনিয়ন ঘুরে দেখা যায়, বড় বড় গাছ ঘরের চালের উপরে পড়েছে। একমাত্র বশত বাড়ী ভেংগে তচনছ হয়ে ঘেছে। রাস্তার উপরে শতশত গাছ ভেংগে গিয়েছে। অসহায় মানুষ এখন আশ্রাকেন্দ্রে অবস্থান করছে। খলিালনগর ইউনিয়নে হরিচন্দ্রকাটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে আশ্রায় কেন্দ্রে হরিচন্দ্রকাটি গ্রামের মৃত আফতাব গাজী তার পরিবার নিয়ে আছেন। তার একমাত্র থাকার ঘরটি ঝড়ে ভেংগে গেছে। নিজের পরিবার, একমাত্র গরুটি নিয়ে আশ্রায় কেন্দ্রে অবস্থান করছেন। এমনই মাগুরা ফলেয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের আশ্রায় কেন্দ্রে প্রায় ৩৫জনের মধ্যে লোকজন আছে। খলিলনগর ইউনিয়নের দক্ষিন নলতা গ্রামের অমেদ জোয়াদ্দারের পুত্র মোমিন জোয়াদ্দার ও তার ছেলে বাহারুল জোয়াদ্দার এবং আজিজুল জোয়াদ্দারের একমাত্র বশতবাড়ীর উপরে বড় শিশুগাছ ভেংগে পড়েছে। শিশু গাছ ভেংগে পড়ার সময় তারা সবাই ঘরের ভিতরে অবস্থান করছিলেন। অল্পের জন্য সবাই বেঁচে গেছেন। এমনই মাগুরা ইউনিয়নের ধুলন্ডা গ্রামের বাবর আলী বিশ্বাসের টিনের চাল ও টিনদিয়ে ঘেরা একমাত্র থাকার ঘরটিতে গাছ পড়ে ভেংগে গেছে। গাছটি ভেংগে পড়ার সময় পরিবার নিয়ে বাবর আলী ঘরে অবস্থান করছিলো। আল্লাহর রহমতে এযাত্রা বেঁচে গেছি বলে জানান তিনি। চাঁদকাটি বারুইপাড়া গ্রামের স্বামী পরিত্যক্তা ছকিনা বেগমের একমাত্র মাটির ঘরটি ঝড়ে ভেংগে গেছে। তালা সদর ইউনিয়নের মৃত সুবল চন্দ্র সেনের পুত্র অমল সেন এর গাছ উপড়ে পড়ে লক্ষাধিক টাকা ক্ষতিসহ ঘরের ছাদ এবং টিনের চাল ন্ষ্ট হয়েগেছে। রাস্তার ২পাশে শতশতগাছ ভেংগে পড়েছে। বুলবুলের তান্ডবে কয়েক কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে ধারনা করা হচ্ছে। উপজেলা চেয়ারম্যান ঘোষ সনৎ কুমার, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ ইকবাল হোসেন, তালা হাসপাতালের টিএইচএ ডাক্তার মীর আবু মাউদ,প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ মাহফুজুর রহমানসহ রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, সাংবাদিকসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ দূর্যোগে মানুষের সাহায্যে এগিয়ে এসেছেন। ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ এর প্রভাবে সাতক্ষীরায় ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেতের আওতায় আসায় দুর্যোগ মোকাবেলায় উপজেলা প্রশাসনসহ তালা স্বাস্থ্য বিভাগও নানা প্রস্তুতি গ্রহন করেছে । তালা হাসপাতালে পঃপঃ কর্মকর্তা ডাক্তার মীর আবু মাউদ এর নেতৃত্বে মেডিকেলটিম গঠন করা হয়েছে।
এ বিষয়ে প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ মাহফুজুর রহমান বলেন, এখনও পর্যন্ত ক্ষয় ক্ষতির পরিমান নির্ধারন করা হয়নি তবে কয়েককোটি টাকার ক্ষতি আশংখা করা যাচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *